• শনিবার   ২৩ জানুয়ারি ২০২১ ||

  • মাঘ ৯ ১৪২৭

  • || ০৯ জমাদিউস সানি ১৪৪২

পিরোজপুর সংবাদ
ব্রেকিং:

আর্মি ওয়েলফেয়ার ট্রাস্টের সঙ্গে সিঙ্গাপুরের আরআইএইচএল’র চুক্তি

পিরোজপুর সংবাদ

প্রকাশিত: ১ ডিসেম্বর ২০২০  

আর্মি ওয়েলফেয়ার ট্রাস্ট (এডব্লিউটি) ও সিংগাপুরের র‌্যাফেলস ইনফ্রাস্ট্রাকচার হোল্ডিংস লিমিটেডের (আরআইএইচএল) মধ্যে চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠান সম্পন্ন হয়েছে।

আন্তঃবাহিনী জনসংযোগ পরিদফতর (আইএসপিআর) জানায়, সোমবার রাজধানীতে হোটেল রেডিসন ব্লু’তে এ অনুষ্ঠান হয়। সেনাবাহিনীর এ্যাডজুটেন্ট জেনারেল ও এডব্লিউটির ভাইস চেয়ারম্যান মেজর জেনারেল মো. এনায়েত উল্ল্যাহ অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন।

অনুষ্ঠানে ট্রাস্ট গ্রিন সিটি প্রজেক্টের পক্ষে ব্যবস্থাপনা পরিচালক অবসরপ্রাপ্ত মেজর জেনারেল মো. নাঈম আশফাক চৌধুরী এবং আরআইএইচএল এর বাংলাদেশ প্রতিনিধি অবসরপ্রাপ্ত লেফটেন্যান্ট কর্নেল হারুন উর রশিদ চৌধুরী ও মি. জ্যু রেনফু নিজ নিজ সংস্থার প্রতিনিধিত্ব করেন। এ চুক্তির মাধ্যমে ট্রাস্ট গ্রিন সিটির উন্নয়ন সহায়ক ফার্ম হিসেবে আরআইএইচএল গ্রুপকে নিযুক্ত করা হলো।

আইএসপিআর আরো জানায়, আর্মি ওয়েলফেয়ার ট্রাস্ট সমাজ তথা দেশের আর্থ-সামাজিক উন্নয়নের  মহৎ উদ্দেশ্যে একটি আধুনিক, স্মার্ট, প্রকৃতিবান্ধব ও স্বাস্থ্যকর পরিবেশ সম্বলিত শহর তৈরি করার জন্য একটি প্রকল্প হাতে নেয়। ২০০০ সাল থেকে মিরপুর ডিওএইচএস ও উত্তরা সংলগ্ন বাউনিয়া এলাকায় জমি কেনার মাধ্যমে প্রকল্পটির কাজ শুরু হয়। ক্রমবর্ধমান ঢাকা শহরের আবাসন অপ্রতুলতা ও আধুনিক সুযোগ সুবিধা সম্বলিত আবাসন সমস্যার সমাধানকল্পে বাংলাদেশ সেনাবাহিনী এই অত্যাধুনিক আবাসন ব্যবস্থা তৈরির প্রয়াস নেয়। 

প্রকল্পটির মূল উদ্দেশ্য হচ্ছে প্রাকৃতিক ও কৃত্রিম নান্দনিক সৌন্দর্য সমন্বিত এবং আধুনিক প্রযুক্তি ও সুবিধা সম্বলিত সবুজ, নয়নাভিরাম, প্রকৃতিবান্ধব আবাসন ব্যবস্থাপনা তৈরি করা, যা বাংলাদেশ তথা এশিয়ার জন্য একটি মডেল হিসেবে বিবেচিত হবে। পরিকল্পিত  ট্রাস্ট গ্রিন সিটি হবে নিরাপদ, প্রাণবন্ত ও টেকসই  আধুনিক মডেল শহরের  উদাহরণ যা বাংলাদেশের সাসটেইনেবল ডেভেলপমেন্ট গোল (এসডিজি) অর্জনে সহায়ক ভূমিকা পালন করবে।

উল্লেখ্য, একটি নিরপেক্ষ ও দীর্ঘ প্রক্রিয়ার মাধ্যমে অন্যান্য ফার্মের সঙ্গে প্রতিযোগিতা করে আরআইএইচএল’কে ট্রাস্ট গ্রিন সিটির নির্মাণ কাজে নিয়োগ দেয়া হয়। চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে এডব্লিউটির ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও অন্যান্য ঊর্ধ্বতন সামরিক ও অসামরিক ব্যক্তিরা উপস্থিত ছিলেন।