• সোমবার   ২৫ মে ২০২০ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ১০ ১৪২৭

  • || ০২ শাওয়াল ১৪৪১

পিরোজপুর সংবাদ
৪৭

করোনা প্রতিরোধে পুষ্টিবার্তার অনুমোদন সরকারের

পিরোজপুর সংবাদ

প্রকাশিত: ২৬ এপ্রিল ২০২০  

মহামারি কোভিড-১৯ রোগ বা করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ রক্ষায় হরেক রকমের টোটকা বা ভ্রান্ত ধারণা থেকে মুক্তি দিতে পুষ্টিবিদদের মতামত নিয়ে একটি পুষ্টিবার্তা অনুমোদন দিয়েছে সরকার। স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্য সেবা বিভাগ সম্প্রতি এই পুষ্টিবার্তা অনুমোদন দিয়ে দেশব্যাপী প্রচারণার জন্য নির্দেশ দিয়েছে।

মন্ত্রণালয়ের চিঠিতে বলা হয়েছে, বর্তমান কোভিড-১৯ দুর্যোগকালীন সময়ে সাধারণ মানুষের পুষ্টির ব্যাপারে ভ্রান্ত ধারণা দূর করে সঠিক তথ্য প্রদানের উদ্দেশ্যে বাংলাদেশ জাতীয় পুষ্টি পরিষদ সংশ্লিষ্ট সকল অংশীজনের সমন্বয়ে প্রণীত পুষ্টিবার্তা দেশব্যাপী জনস্বার্থে প্রচারণার উদ্দেশ্যে অনুমোদন করা হয়েছে। ‘করোনা ভাইরাস (কোভিড-১৯) প্রতিরোধে পুষ্টিবার্তা’টি স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় হতে বাংলাদেশ জাতীয় পুষ্টি পরিষদের মহাপরিচালকের কাছে পাঠানো হয়েছে।  

ভিটামিন ‘সি’

যেকোনো ভাইরাস প্রতিরোধে কার্যকরী ভূমিকা পালন করে ভিটামিন ‘সি’। দৈনিক খাদ্য তালিকায় পর্যাপ্ত পরিমাণে ভিটামিন ‘সি’ সমৃদ্ধ খাবার রাখুন। পেয়ারা, আমলকি, লেবু, জাম্বুরা, কমলা, মিষ্টি আলু, টমেটো, কাঁচা মরিচ, ইত্যাদিসহ অন্যান্য ফলমূল ও শাকসবজি (দিনে কমপক্ষে এক ধরনের ফল ও দুই ধরনের শাকসবজি) খান।

প্রতিদিন জিংক সমৃদ্ধ খাবার

মাছ, মাংস, ডিম, দুধ, বিচি, বাদাম, ডাল এবং গম জাতীয় খাবার এবং ম্যাগনেসিয়াম সমৃদ্ধ খাবার যেমন পালং শাক, টক দই ইত্যাদি খান।

মাছ, মাংস বেশি তাপে রান্না

রান্নার সময় শাকসবজি বড় টুকরো করে কেটে কম তাপে ঢেকে রান্না করুন যাতে প্রয়োজনীয় পুষ্টি উপাদান বিদ্যমান থাকে। মাছ, মাংস, ডিম বেশি আঁচে সময় নিয়ে রান্না (সুসিদ্ধ) করুন। মাছ, মাংস ও সবজি কেটে আলাদা পাত্রে রাখুন। রান্নার সময় ভাতের মাড় ফেলবেন না। রান্না এবং খাওয়ার আগে ভালো করে সাবন দিয়ে হাত ধুয়ে নিন।

পর্যাপ্ত পানি ও ফাস্ট ফুড পরিহার

প্রতিদিন পর্যাপ্ত পরিমাণে (কমপক্ষে ৮-১০ গ্লাস) পানি পান করুন। কুসুম গরম পানি হলে ভালো হয়। প্রক্রিয়াজাত খাবার, বোতলজাত কোমল পানীয়, কৃত্রিম জুস, অতিরিক্ত লবণ (দৈনিক ১ চা চামচের কম), চিনি ও চর্বিযুক্ত খাবার এবং ফাস্ট ফুড পরিহার করুন।

কমপক্ষে ৩০ মিনিট শারীরিক পরিশ্রম

নিয়মিত ব্যায়াম বা শারীরিক পরিশ্রম (কমপক্ষে ৩০ মিনিট) করুন। সেই সঙ্গে দৈনিক ৭-৮ ঘণ্টা ঘুমানোর মাধ্যমে পরিপূর্ণ বিশ্রাম নিন। মানসিক চাপমুক্ত থাকুন। মানসিক চাপ রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কমিয়ে দেয়। সম্ভব হলে ১৫-২০ মিনিট রোদে থাকুন।

মন্ত্রণালয়ের চিঠিতে করোনা ভাইরাসের লক্ষণসমূহ দেখা দিলে অতিসত্ত্বর নিকটস্থ সরকারি স্বাস্থ্যসেবা কেন্দ্রে যোগাযোগ করা অথবা হটলাইনে (১৬২৬৩, ৩৩৩) কল করার পরামর্শ দেয়া হয়েছে।

স্বাস্থ্য বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর