• সোমবার   ১০ মে ২০২১ ||

  • বৈশাখ ২৬ ১৪২৮

  • || ২৬ রমজান ১৪৪২

পিরোজপুর সংবাদ
ব্রেকিং:

গরমে হঠাৎ মুখে ব্রণ বেড়ে গেলে যা করবেন

পিরোজপুর সংবাদ

প্রকাশিত: ১৯ এপ্রিল ২০২১  

গরমে আমাদের ত্বকে নানা সমস্যা দেখে দেয়। এর মধ্যে একটি হলো মুখে ব্রণের আক্রমণ। যা খুবই বিরক্তিকর। এর থেকে মুক্তি পেতে অনেকেই নানা প্রসাধনী বুবহার করেন। যার ফলাফল সবসময় ভালো হয়না।  

স্বাস্থ্য ও জীবনধারাবিষয়ক ওয়েবসাইট বোল্ডস্কাইয়ের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, হঠাৎ ব্রণ ওঠা বিরল ঘটনা নয়, বিশেষ করে টিনএজারদের ক্ষেত্রে। হরমোনের পরিবর্তন, রোদে ঘোরাঘুরি, ডায়েটে পরিবর্তন, চাপ, সেবামের অতি-উৎপাদন, ধূমপান এবং অতিরিক্ত মদ্যপানের ফলে হঠাৎ ব্রণ দেখা দিতে পারে। আর এমন হঠাৎ ব্রণের উদয়ে আমরা খুব চিন্তিত হয়ে পড়ি।

চিন্তার কিছু নেই! হঠাৎ মুখে ব্রণ দেখা দিলে কী করতে হবে, তারও সঠিক ও কার্যকর উপায় রয়েছে। চলুন জেনে নেয়া যাক সেই উপায়গুলো-

ডায়েটের দিকে নজর দিন

হঠাৎ কেন ব্রণ দেখা দিল, তা জানতে সাম্প্রতিক ডায়েটের দিকে নজর দিতে পারেন। অস্বাস্থ্যকর খাবার খাচ্ছেন না তো? অস্বাস্থ্যকর খাবার, মানে জাঙ্ক ফুড, তৈলাক্ত খাবার, ভাজা খাবার ও উচ্চমাত্রায় চিনিযুক্ত খাবারের কথা বলা হচ্ছে। এসব খাবার ব্রণ বাড়িয়ে দিতে পারে। তাই পরামর্শ, ডায়েটের দিকে নজর দিন এবং অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট সমৃদ্ধ খাবার খান। যেমন- সবুজ শাকসবজি, বাদাম ও ফলমূল।

চুলের প্রসাধনের দিকে নজর দিন

আপনি যদি হঠাৎ ব্রণের সমস্যার মুখোমুখি হন, তবে অবশ্যই হেয়ার প্রডাক্টের দিকে নজর দেবেন। কন্ডিশনার, শ্যাম্পু, সেরাম ও হেয়ার স্প্রে আমাদের ত্বকের সংস্পর্শে আসে, বিশেষ করে কপালে। হঠাৎ ব্রণের আবির্ভাবের এটাও একটা কারণ হতে পারে, যেটার দিকে আমরা হয়তো খেয়ালও রাখি না। যদি ব্রণ কপালে ওঠে, তাহলে হেয়ার প্রোডাক্ট সম্ভাব্য কারণ হতে পারে। তাই আপনার যদি হঠাৎ ব্রণ হয়, তাহলে এসব থেকে কিছু দিনের জন্য বিরত থাকাই উত্তম।

মুখ স্পর্শ করবেন না

ব্রণের সঙ্গে লড়াইয়ে প্রথম পদক্ষেপ হলো মুখ থেকে হাত দূরে রাখা। ঘনঘন মুখে স্পর্শ করলে হাত থেকে ব্যাকটেরিয়া মুখে যেতে পারে এবং তাতে পরিস্থিতি আরো খারাপ হতে পারে। তাই সকালে অ্যান্টিব্যাকটেরিয়াল ক্লিনজার দিয়ে মুখ ধুয়ে ফেলুন। এরপর মুখমণ্ডলকে একা থাকতে দিন। আর যদি বারবার স্পর্শ করতে থাকেন, তবে তার পরিণতি নিজ চোখেই দেখবেন।

বরফ চিকিৎসা

কয়েকটি আইস কিউব ধোয়া কাপড়ে নিন এবং ধীরে মুখে লাগান। দিন কয়েক বার করে দেখুন। ব্রণ ধীরে ধীরে দূর হয়ে যাবে।

টি ট্রি অয়েল

ব্রণের কারণে ত্বকে ব্যথা হয়। এক্ষেত্রে আপনি টি ট্রি অয়েল ব্যবহার করে স্পট ট্রিটমেন্ট করতে পারেন। টি ট্রি অয়েলে অ্যান্টিব্যাকটেরিয়াল উপাদান থাকে এবং এটি ত্বকের গভীর থেকে পরিষ্কার করে ব্রণ দূর করে। ১০ থেকে ১২ ফোঁটা নারকেল বা বাদামের তেলের সঙ্গে ৪ থেকে ৫ ফোঁটা টি ট্রি অয়েল মিশিয়ে ব্রণের স্থানে লাগান। ১০ থেকে ১৫ মিনিট এভাবে রাখার পর ধুয়ে ফেলুন। ব্রণ দূর করতে প্রতিদিন স্পট ট্রিটমেন্ট করুন।

পুরু মেকআপ করবেন না

ব্রণ লুকানোর জন্য যদিও মেকআপ সেরা পদ্ধতি, তবে ব্রণের সমস্যা বাড়াতে মেকআপের জুড়ি নেই। অতিমাত্রায় মেকআপ ব্রণের সমস্যা বাড়িয়ে দেবে। যদি অফিস বা কোনো অনুষ্ঠানে যাওয়ার জন্য মেকআপ করতেই হয়, তবে হালকা মেকআপ করুন।

ব্লিচিং বন্ধ করুন

স্বাভাবিক সময়ে ব্লিচিং করলে ত্বক উজ্জ্বল হয়। কিন্তু যখন মুখে ব্রণের উদয় হয়, তখন এটা ভালো আইডিয়া হতে পারে না। ব্লিচিং প্রক্রিয়ায় এমন কিছু উপাদান থাকে, যা ব্রণের সমস্যা বাড়িয়ে দিতে পারে। তাই ব্রণ উঠলে ব্লিচিং ট্রিটমেন্টকে বিরতি দেয়াই ভালো।