• মঙ্গলবার   ২৬ মে ২০২০ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ১১ ১৪২৭

  • || ০৩ শাওয়াল ১৪৪১

পিরোজপুর সংবাদ
১৪৬

ত্রাণের চাল বিক্রি করে দিলেন বিএনপি সমর্থিত ইউপি চেয়ারম্যান

পিরোজপুর সংবাদ

প্রকাশিত: ২১ এপ্রিল ২০২০  

পঞ্চগড়ের দেবীগঞ্জ উপজেলার দেবীডুবা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ও উপজেলা বিএনপির সমাজসেবা সম্পাদক আব্দুর রাজ্জাকের বিরুদ্ধে ত্রাণের চাল গোপনে বিক্রি করে টাকা আত্মসাতের অভিযোগ উঠেছে।

রোববার (১৯ এপ্রিল) বিকেলে ওই ইউনিয়নের ১ নম্বর ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য কালীপদ রায়সহ ৭ জন বাসিন্দা দেবীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবর লিখিতভাবে এই অভিযোগ করেন। এমনকি সন্ধ্যায় তারা দেবীডুবা ইউনিয়ন পরিষদ কার্যালয়ের সামনে অবস্থান নিয়ে ত্রাণের চাল বিক্রির ঘটনার প্রতিবাদও জানান।

লিখিত অভিযোগে তারা উল্লেখ করেন, গত ৬ এপ্রিল করোনা পরিস্থিতিতে হতদরিদ্রদের জন্য সরকারি ত্রাণ সহায়তা হিসেবে ২ মেট্রিক টন চাল বরাদ্দ দেয়া হয়। কিন্তু চেয়ারম্যান আব্দুর রাজ্জাক তা দরিদ্রদের মধ্যে বিতরণ না করে সব চাল ইউনিয়ন বিএনপির সাধারণ সম্পাদক শামসুল আলম সরকারের কাছে বিক্রি করে দেন। চাল বিক্রির সব টাকা তিনি আত্মসাৎ করেন বলেও অভিযোগে উল্লেখ করা হয়।

তারা আরও উল্লেখ করেন, এর আগেও চেয়ারম্যান আব্দুর রাজ্জাকের বিরুদ্ধে ভিজিএফের চাল অনিয়মের অভিযোগে মামলা হয়। এমনকি বিষয়টি দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) তদন্ত করছে। ত্রাণের চাল বিক্রির অভিযোগ করার পর থেকেই অভিযোগকারীদের ওই চেয়ারম্যান ও তার লোকজন নানাভাবে হুমকি দিচ্ছে বলেও জানান তারা। তারা প্রশাসনের কাছে বিষয়টি তদন্ত করে বিচার দাবি করেন।

অভিযোগকারী ইউপি সদস্য কালীপদ রায় বলেন, নির্বাচিত হয়েই চেয়ারম্যান আব্দুর রাজ্জাক বিভিন্ন অনিয়ম শুরু করেন। কোন সরকারি বরাদ্দ এলেই তিনি তার স্বজনদের মাঝে বিতরণ করেন। কয়েক বছর আগে ভিজিএফের চাল আত্মসাতের সময় স্থানীয়রা বিষয়টি ধরে ফেলে। পরে তার বিরুদ্ধে মামলা হয়। বিষয়টি দুদকে তদন্তাধীন রয়েছে। সম্প্রতি করোনায় বরাদ্দ পাওয়া ২ মেট্রিক টন চাল দরিদ্রদের মাঝে বিতরণ না করে তিনি তা ইউনিয়ন বিএনপির সাধারণ সম্পাদক শামসুল আলম সরকারের কাছে বিক্রি করে সব টাকা আত্মসাৎ করেন। আমি ও ইউনিয়নের কয়েকজন সচেতন ব্যক্তি বিষয়টির প্রতিবাদ জানালে তিনি ও তার লোকজন আমাদেরকে প্রাণনাশসহ বিভিন্ন হুমকি দিতে থাকেন। আমরা এখন নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছি।

দেবীডুবা ইউনিয়ন বিএনপির সাধারণ সম্পাদক শামসুল আলম সরকার বলেন, আমি চেয়ারম্যান আব্দুর রাজ্জাকের কাছে ২ মেট্রিক টন চাল কিনে বিতরণ করেছি। সেই চালটি ত্রাণের কিনা আমি বলতে পারবো না। ৩৪ হাজার টাকা মেট্রিক টন দরে আমি চালগুলো কিনে নেই।

দেবীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা প্রত্যয় হাসান বলেন, দেবীডুবা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুর রাজ্জাকের বিরুদ্ধে ত্রাণের চাল বিক্রির অভিযোগ করেছেন ওই ইউনিয়নের এক ইউপি সদস্যসহ কয়েকজন ব্যক্তি। বিষয়টি তদন্ত করার আমরা তিন সদস্য বিশিষ্ট একটা কমিটি গঠন করছি। তদন্ত প্রতিবেদন পেলেই প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

রাজনীতি বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর