• শনিবার   ০৪ জুলাই ২০২০ ||

  • আষাঢ় ১৯ ১৪২৭

  • || ১৩ জ্বিলকদ ১৪৪১

পিরোজপুর সংবাদ
১৩

ফের অনুমোদন পাওয়ার আগেই ৭৩৭ ম্যাক্স উৎপাদন শুরু করেছে বোয়িং

পিরোজপুর সংবাদ

প্রকাশিত: ২৮ মে ২০২০  

 


যুক্তরাষ্ট্রের ফেডারেল অ্যাভিয়েশন অ্যাডমিনিস্ট্রেশনের অনুমোদন পাওয়ার আগেই বিতর্কিত ৭৩৭ ম্যাক্স মডেলের বিমান ফের উৎপাদন শুরু করেছে মার্কিন উড়োজাহাজ নির্মাতা প্রতিষ্ঠান বোয়িং। ম্যাক্স ৭৩৭ মডেলটি বোয়িংয়ের সবচেয়ে ব্যবসা সফল বিমান, তবে গত বছর এ মডেলের দু'টি বিমান দুর্ঘটনার পর নকশায় ত্রুটি রয়েছে এমন অভিযোগ উঠে। পরে সারাবিশ্বে এয়ারলানসগুলো বিমানটি গ্রাউন্ডেড করতে থাকে। বাতিল হয় একের পর এক ক্রয়াদেশ, ফলে মডেলটির উৎপাদন বন্ধ করে দেয় বোয়িং।

বুধবার বোয়িং এক ঘোষণায় জানায়, কোম্পানির ওয়াশিংটনের রেন্টনে অবস্থিত কারখানায় সীমিত হারে ৭৩৭ ম্যাক্স মডেলের বিমান উৎপাদন শুরু হয়েছে। ৭৩৭ প্রোগ্রামের জেনারেল ম্যানেজার ওয়াল্ট অডিশো বলেন, আমরা উৎপাদন ব্যবস্থা আরও শক্তিশালী ও বিকশিত করতে একটি নিরবচ্ছিন্ন যাত্রায় রয়েছি। উল্লেখ্য, চলতি বছরের জানুয়ারি থেকে ৭৩৭ ম্যাক্সের উৎপাদন বন্ধ করে দেয় বোয়িং। তবে এর দুই মাস পর মহামারী করোনাভাইরাস পরিস্থিতে মার্চে সব কারখানা বন্ধ করে প্রতিষ্ঠানটি।


২০১৮ সালের শেষ দিকে ৭৩৭ ম্যাক্স মডেলের উড়োজাহাজ ইন্দোনেশিয়া ও ইথিওপিয়ায় দু'টি বড় দুর্ঘটনার শিকার হয়। এতে প্রাণ হারান ৩৫০ জনের বেশি আরোহী। এর পরপরই মডেলটির নকশায় ত্রুটি রয়েছে সন্দেহ করে গ্রাউন্ডেড করতে শুরু করে এয়ারলাইন্সগুলো। এর ফলে বড় সংকটে পড়ে বোয়িং।
২০১৯ সালের মার্চ থেকে বিমান গ্রাউন্ডেড শুরু হলেও বোয়িং এই মডেলটির উৎপাদন বন্ধ করে এ বছরের জানুয়ারিতে। অত্যাধুনিক সুযোগ-সুবিধা সম্পন্ন বাণিজ্যিক এ মডেলটির চাহিদা বিশ্বজুড়ে সবচেয়ে বেশি। নকশার ত্রুটি দূর করে ফের উৎপাদন শুরু করার অনুমতি এখনও পায়নি বোয়িং। তবে ইতিমধ্যে ৭৩৭ ম্যাক্স মডেলটির উৎপাদন শুরু করে দিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি।

আন্তর্জাতিক বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর