• সোমবার   ১৭ মে ২০২১ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ২ ১৪২৮

  • || ০৩ শাওয়াল ১৪৪২

পিরোজপুর সংবাদ

মঠবাড়িয়ায় হত্যা মামলার ৩ আসামী গ্রেপ্তার

পিরোজপুর সংবাদ

প্রকাশিত: ২৫ এপ্রিল ২০২১  

মঠবাড়িয়া প্রতিনিধি : পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় জমি সংক্রান্ত বিরোধে সংঘর্ষে আহত আইয়ূব আলী সরদার (৫০)  নিহত হবার ঘটনায় দায়ের হওয়া মামলায়  বেল্লাল হোসেন (৪০) ও ঈসা (২৪) নামে দুই আসামী শনিবার রাতে গ্রেপ্তার করেছে থানা পুলিশ। সংঘর্ষে আহত আইয়ূব আলী শনিবার দুপুরে চিকিসাধীন অবস্থান মারা যাবার পরে হামলার মামলাটি হত্যা মামলা হিসেবে রূপান্তিত হয়। গ্রেপ্তারকৃত বেল্লাল হোসেন উপজেলা দক্ষিণ মিঠাখালী গ্রামের মৃত. আব্দুল মজিদ মিয়ার ছেলে ও ঈসা সোবাহান হাওলাদারের ছেলে। এর আগে মামলার প্রধান আসামী সোবাহান হাওলাদারকে শুক্রবার বিকেলে গ্রেপ্তার করে শনিবার দুপুরে আদালতে সোপর্দ করেছে। সোবাহান হাওলাদার মৃত.মজিদ হাওলাদারের ছেলে।

মামলা সূত্রে জানা গেছে, নিহত আইয়ূব আলী সরদারের মেয়ে জামাতা নাঈম ওই এলাকায় (দক্ষিণ মিঠাখালী) জমি ক্রয় করে ভোগ দখল করে আসছিলো। শুক্রবার সকালে ওই জমিতে প্রতিপক্ষ সোবাহন হাওলাদার তার দলবল নিয়ে জমি দখল করার চেষ্টা করে। এসময় মিতুর বাবা আইয়ূব আলী সরদার বাধা দিতে গেলে তাকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে জখম করে। এসময় তার আত্মচিৎকারে তার স্ত্রী রুবি বেগম, মেয়ে মিতু এবং মিজানুর, জালাল নামে আরও দুই স্বজন এগিয়ে এলে তাদেরকেও ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে জখম করে।

এ সংঘর্ষের ঘটনায় নিহত আইয়ূব আলী সরদারের মেয়ে মিতু বেগম (২৫) বাদি হয়ে সোবাহান হাওলাদার (৫২) কে প্রধান আসামী করে ৯ জন নামীয় ও অজ্ঞাত ৩ জনের বিরুদ্ধে শুক্রবার রাতে মঠবাড়িয়া থানায় মামলা দায়ের করেন।

আহতদের স্থানীয়রা উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে গুরুতর আহত আইয়ূব আলী, রুবি বেগম, মিজানুর, জালালকে উন্নত চিকিৎসার জন্য বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়। পরে সেখান থেকে আইয়ূব আলী সরদারকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতলে নেয়া হলে শনিবার দুপুরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সে মারা যায়।

মঠবাড়িয়া থানার ওসি মাসুদুজ্জামান বলেন, মারামারির ঘটনায় দায়ের করা মামলাটি হত্যা মামলায় রূপান্তিত হয়েছে। গ্রেপ্তারকৃত দুই আসামীকে রোববার দুপুরে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে। অন্যান্য আসামী গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।