• শুক্রবার   ১৯ আগস্ট ২০২২ ||

  • ভাদ্র ৪ ১৪২৯

  • || ২০ মুহররম ১৪৪৪

পিরোজপুর সংবাদ
ব্রেকিং:
প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করলেন জাতিসংঘ মানবাধিকার প্রধান বঙ্গবন্ধুকে হত্যার পর আ. লীগের নেতারা কী করেছিলেন: প্রধানমন্ত্রী সুশীল বাবু মইনুল খুনিদের নিয়ে দল গঠন করে: প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধু হত্যায় জড়িতরা আজ মানবাধিকারের কথা বলে: প্রধানমন্ত্রী ভারত পারলে আমরাও রাশিয়া থেকে তেল কিনতে পারবো: প্রধানমন্ত্রী চকবাজারে অগ্নিকাণ্ডে হতাহতের ঘটনায় প্রধানমন্ত্রীর শোক ‘ষড়যন্ত্র প্রতিহত করে বঙ্গবন্ধু হত্যার বিচারের রায় কার্যকর করেছি’ খবরদার আন্দোলনকারীদের ডিস্টার্ব করবেন না: প্রধানমন্ত্রী জাতির পিতার মৃত্যু নেই প্রজন্ম থেকে প্রজন্মান্তরে বঙ্গবন্ধু আমাদের রোল মডেল

শপথ নিলেন হাইকোর্টের নতুন ১১ বিচারপতি

পিরোজপুর সংবাদ

প্রকাশিত: ১ আগস্ট ২০২২  

বাংলাদেশ সুপ্রিমকোর্টের হাইকোর্ট বিভাগে নতুন নিয়োগপ্রাপ্ত ১১ জন অতিরিক্ত বিচারপতি শপথ গ্রহণ করেছেন।

রোববার (৩১ জুলাই) বিকালে সুপ্রিম কোর্টের জাজেস লাউঞ্জে প্রধান বিচারপতি হাসান ফয়েজ সিদ্দিকী তাদের শপথ বাক্য পাঠ করান। পবিত্র কোরান তিলাওয়াতের মধ্য দিয়ে শপথ অনুষ্ঠান শুরু হয়। কোরান তিলাওয়াত করেন হাফেজ মো: মাসুম বিল্লাহ। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন হাইকোর্টের রেজিস্ট্রার মো: গোলাম রাব্বানী। পরে গীতা পাঠ করা হয়।

নবনিযুক্ত অতিরিক্ত বিচারপতিগণ হলেন, অবসর-পূর্ব ছুটিতে থাকা ঢাকার জেলা ও দায়রা জজ শওকত আলী চৌধুরী, কুমিল্লার জেলা ও দায়রা জজ আতাবুল্লাহ,সুপ্রিম কোর্টের রেজিস্ট্রার জেনারেল মো: বজলুর রহমান,ঢাকা মহানগর দায়রা জজজ কেএম ইমরুল কায়েশ,টাঙ্গাইলের জেলা জজ ফাহমিদা কাদের,ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল অ্যাডভোকেট মো:বশিরউল্লাহ,ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল বিশ্বজিৎ দেবনাথ, ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল আমিনুল ইসলাম,অ্যাডভোকেট আলী রেজা, অ্যাডভোকেট এসএম মাসুদ হোসেন দোলন এবং অ্যাডভোকেট একেএম রবিউল হাসান।

প্রজ্ঞাপনে বলা হয়,সংবিধানের ৯৮ অনুচ্ছেদের ক্ষমতাবলে তাদের শপথ গ্রহণের তারিখ থেকে অনধিক ২ বছরের জন্য সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগে অতিরিক্ত বিচারক হিসেবে নিয়োগ দেয়া হয়েছে। এ নিয়োগ শপথ গ্রহণের দিন থেকে কার্যকর হবে। তাদের বিচার কার্যক্রম ‘সন্তোষজনক’ হলে প্রধান বিচারপতির সুপারিশের ভিত্তিতে প্রেসিডেন্ট তাদের স্থায়ী নিয়োগ দেবেন।

প্রসঙ্গত: সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগে ৮৫ জন,আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালে ৩ জন স্থায়ী বিচারপতি কর্মরত রয়েছেন। প্রধান বিচারপতিসহ আপিল বিভাগে রয়েছেন ৭ বিচারপতি। দু’বছর আগেও উভয় বিভাগে শতাধিক বিচারপতি কর্মরত ছিলেন। এ হিসেবে অবসর এবং মৃত্যুজনিত কারণে উভয় বিভাগে অন্তত: ৮ জন বিচারপতির পদ এখন শূণ্য। নতুন বিচারপতি নিয়োগের মধ্য দিয়ে শূণ্যতা দূর হবে বলে মনে করছেন আইনাঙ্গন সংশ্লিষ্টরা।