• শুক্রবার   ২৭ জানুয়ারি ২০২৩ ||

  • মাঘ ১৩ ১৪২৯

  • || ০৩ রজব ১৪৪৪

পিরোজপুর সংবাদ

বাফটা মনোনয়নে ১২ ও ২২ বছর পর রেকর্ড গড়লো যে চলচ্চিত্র

পিরোজপুর সংবাদ

প্রকাশিত: ২১ জানুয়ারি ২০২৩  

ব্রিটিশ অ্যাকাডেমি ফিল্ম অ্যাওয়ার্ডসের (বাফটা) মনোনয়ন তালিকায় রাজত্ব করলো নেটফ্লিক্সে মুক্তিপ্রাপ্ত ‘অল কোয়ায়েট অন দ্য ওয়েস্টার্ন ফ্রন্ট’। জার্মান ভাষার এই চলচ্চিত্র সর্বাধিক ১৪টি মনোনয়ন পেয়েছে। বাফটায় ১২ বছর পর কোনও চলচ্চিত্র এতো মনোনয়ন পেলো। সবশেষ ২০১১ সালে ‘দ্য কিংস স্পিচ’ ১৪টি বিভাগে মনোনীত হয়। 

১৯ জানুয়ারি এবারের মনোনয়ন তালিকা ঘোষণা করেন অভিনেত্রী হেইলি অ্যাটওয়েল ও অভিনেতা টোহিব জিমো।

৪৭তম টরন্টো আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবের স্পেশাল প্রেজেন্টেশনে প্রদর্শিত হয় প্রথম বিশ্বযুদ্ধের পটভূমিতে নির্মিত এডওয়ার্ড বারগারের ‘অল কোয়ায়েট অন দ্য ওয়েস্টার্ন ফ্রন্ট’। ১৯২৮ সালে প্রকাশিত জার্মান কথাশিল্পী এরিক মারিয়া রেমার্কের ধ্রুপদী উপন্যাস ‘অল কোয়ায়েট অন দ্য ওয়েস্টার্ন ফ্রন্ট’ অবলম্বনে সাজানো হয়েছে এটি। ১৯৩০ সালে একই উপন্যাসে অনুপ্রাণিত লুইস মাইলস্টোনের ‘অল কোয়ায়েট অন দ্য ওয়েস্টার্ন ফ্রন্ট’ অস্কারে সেরা চলচ্চিত্র হয়। ১৯৭৯ সালে ‘অল কোয়ায়েট অন দ্য ওয়েস্টার্ন ফ্রন্ট’-এর আরেকটি সংস্করণ পরিচালনা করেন ডেলবার্ট মান।

বাফটার ইতিহাসে ইংরেজির বাইরে অন্য ভাষার চলচ্চিত্রের মধ্যে ২০০১ সালে ‘ক্রাউচিং টাইগার হিডেন ড্রাগন’ সর্বাধিক ১৪টি মনোনয়ন পেয়েছিল। ২২ বছর পর সেই রেকর্ড স্পর্শ করলো ‘অল কোয়ায়েট অন দ্য ওয়েস্টার্ন ফ্রন্ট’। এতে যুদ্ধের নৃশংসতা দেখানো হলেও সমালোচকদের ভূয়সী প্রশংসা কুড়িয়েছে। জার্মান দৃষ্টিকোণ থেকে প্রথম বিশ্বযুদ্ধকে দেখানো হয়েছে এতে। এর প্রধান চরিত্র আদর্শবাদী তরুণ সৈনিক পল বয়মার। যুদ্ধের ক্রমবর্ধমান বর্বর বাস্তবতার মুখোমুখি হয় সে। এতে অভিনয় করেছেন অস্ট্রিয়ান তারকা ফেলিক্স কামারার। ২০২১ সালে ছবিটির চিত্রায়ন হয়েছে চেক রিপাবলিকে। এর চিত্রনাট্য লিখেছেন স্কটিশ ট্রায়াথলেট চ্যাম্পিয়ন লেসলি প্যাটারসন ও তার স্বামী আয়ান স্টোকেল।

ইংরেজির বাইরে অন্য ভাষার ছবি হিসেবে সবশেষ বাফটায় সেরা চলচ্চিত্র পুরস্কার জিতে নেয় ২০১৯ সালে মেক্সিকোর আলফনসো কুয়ারনের ‘রোমা’। সেই সম্মান পাওয়ার পথে ‘অল কোয়ায়েট অন দ্য ওয়েস্টার্ন ফ্রন্ট’ ছবির প্রতিদ্বন্দ্বী ১৯২০ সালের পটভূমিতে দুই বন্ধুর বিবাদকে কেন্দ্র করে মার্টিন ম্যাকডোনার ‘দ্য বানশিজ অব ইনিশেরিন’, এলভিস প্রিসলির বায়োপিক ‘এলভিস’, মাল্টিভার্সের মাধ্যমে নিজের বিভিন্ন সংস্করণ খুঁজে বেড়ানো একজন নারীকে ঘিরে নির্মিত কল্পবিজ্ঞানধর্মী ছবি ‘এভরিথিং এভরিহোয়্যার অল অ্যাট ওয়ান্স’ এবং জার্মান অর্কেস্ট্রা সংগীত পরিচালকের মনস্তত্ব নিয়ে টড ফিল্ড পরিচালিত ‘টার’।

৭৬তম বাফটা ফিল্ম অ্যাওয়ার্ডসে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ১০টি করে মনোনয়ন পেয়েছে ‘দ্য বানশিজ অব ইনিশেরিন’ ও ‘এভরিথিং এভরিহোয়্যার অল অ্যাট ওয়ান্স’। ৯টি মনোনয়ন বাগিয়ে নিয়েছে ‘এলভিস’। পাঁচটি বিভাগে মনোনীত হয়েছে ‘টার’। এছাড়া চারটি করে মনোনয়ন পেয়েছে ‘আফটারসান’, ‘দ্য ব্যাটম্যান’, ‘টপ গান: ম্যাভেরিক’, ‘দ্য হোয়েল’ ও ‘গুডলাক টু ইউ, লিও গ্র্যান্ড’।

মনোনীত অভিনয়শিল্পীরা

‘টার’ ছবিতে খ্যাতিমান অর্কেস্ট্রার সংগীত পরিচালকের চরিত্রে নৈপুণ্যের জন্য সেরা অভিনেত্রী বিভাগে মনোনয়ন পেয়েছেন কেট ব্ল্যানচেট। বাফটার ইতিহাসে মোট সাতবার মনোনীত হয়েছেন তিনি। এরমধ্যে ‘ব্লু জেসমিন’, ‘দ্য অ্যাভিয়েটর’ ও ‘এলিজাবেথ’ ছবির জন্য তিনবার বাফটায় পুরস্কার জিতেছেন অস্ট্রেলিয়ান এই তারকা। এবারের বাফটায় তার প্রতিদ্বন্দ্বী ভায়োলা ডেভিস (দ্য ওম্যান কিং), ড্যানিয়েল ডেডওয়াইলার (টিল), আনা দে আরমাস (ব্লন্ড), এমা থম্পসন (গুডলাক টু ইউ লিও গ্র্যান্ড) এবং মিশেল ইও (এভরিথিং এভরিহোয়্যার অল অ্যাট ওয়ান্স)।

সেরা অভিনেতা বিভাগে মনোনয়ন পেয়েছেন অস্টিন বাটলার (এলভিস), ব্রেন্ডন ফ্রেজার (দ্য হোয়েল), কলিন ফ্যারেল (দ্য বানশিজ অব ইনিশেরিন), ড্যারিল ম্যাককর্ম্যাক (গুডলাক টু ইউ লিও গ্র্যান্ড), পল মেসকাল (আফটারসান) এবং বিল নাই (লিভিং)।

সেরা পার্শ্ব অভিনেতা বিভাগে ভিয়েতনামের কে হুই কোয়ান (এভরিথিং এভরিহোয়্যার অল অ্যাট ওয়ান্স) ফেভারিট। বাফটায় তার প্রতিদ্বন্দ্বী এডি রেডমেইন (দ্য গুড নার্স), আলব্রেশট শুহ (অল কোয়ায়েট অন দ্য ওয়েস্টার্ন ফ্রন্ট), মাইকেল ওয়ার্ড (এম্পায়ার অব লাইট), ব্রেন্ডন গ্লিসন (দ্য বানশিজ অব ইনিশেরিন) এবং ব্যারি কিওগ্যান (দ্য বানশিজ অব ইনিশেরিন)।

সেরা পার্শ্ব অভিনেত্রী বিভাগে সুপারহিরো ছবি ‘ব্ল্যাক প্যান্থার: ওয়াকান্ডা ফরেভার’-এর জন্য অ্যাঞ্জেলা ব্যাসেট সবচেয়ে ফেভারিট। বাফটায় তার প্রতিদ্বন্দ্বী হং চাও (দ্য হোয়েল), কেরি কন্ডন (দ্য বানশিজ অব ইনিশেরিন), জেমি লি কার্টিস (এভরিথিং এভরিহোয়্যার অল অ্যাট ওয়ান্স), ডলি দে লিয়ন (ট্রায়াঙ্গেল অব স্যাডনেস) এবং ক্যারি মালিগ্যান (শি সেইড)।

চারটি বিভাগে মনোনীত ২৪ জন অভিনয়শিল্পীর মধ্যে ১০ জন অশ্বেতাঙ্গ, অর্থাৎ ৪০ শতাংশ।  

বাদ পড়েছেন যারা

এবারের বাফটার মনোনয়ন তালিকায় সব মিলিয়ে ৪৫টি চলচ্চিত্রের নাম রয়েছে। তবে কয়েকজনের বাদ পড়া লক্ষণীয়। এরমধ্যে সেরা পরিচালক শাখায় জায়গা পাননি স্টিভেন স্পিলবার্গ কিংবা জেমস ক্যামেরনের মতো হেভিওয়েটরা। স্টিভেন স্পিলবার্গের শৈশব অবলম্বনে সাজানো ‘দ্য ফেবলম্যানস’ কেবল সেরা মৌলিক চিত্রনাট্য বিভাগে মনোনীত হয়েছে।

গত বছর হলিউড বক্স অফিসে কাড়ি কাড়ি টাকা আয় করা কয়েকটি চলচ্চিত্র আছে এবারের বাফটার মনোনয়ন তালিকায়। এরমধ্যে রয়েছে ‘অ্যাভাটার: দ্য ওয়ে অব ওয়াটার’, ‘টপ গান: ম্যাভেরিক’ ও ‘দ্য ব্যাটম্যান’। যদিও সেগুলো কারিগরি বিভাগের মনোনয়ন।

প্রথম মনোনয়ন এবং নারীরা

মনোনীত ২৪ জন অভিনয়শিল্পীর মধ্যে বাফটায় প্রথমবার মনোনয়ন পেয়েছেন ১৪ জন। তাদের মধ্যে উল্লেখযোগ্য আইরিশ অভিনেতা কলিন ফ্যারেল ও আমেরিকান-কানাডিয়ান তারকা ব্রেন্ডন ফ্রেজার। ‘এলভিস’ ছবির জন্য সেরা চিত্রগ্রহণ বিভাগে মনোনীত ম্যান্ডি ওয়াকার পুরস্কার জিতলে প্রথমবার নারী হিসেবে এই স্বীকৃতি পাওয়ার ইতিহাস গড়বেন।

সেরা পরিচালক বিভাগে মনোনীত ছয় জনের মধ্যে কেবল একজন নারী। তিনি হলেন ‘দ্য ওম্যান কিং’ ছবির জিনা প্রিন্স-বাইথউড। তার প্রতিদ্বন্দ্বী এডওয়ার্ড বারগার (অল কোয়ায়েট অন দ্য ওয়েস্টার্ন ফ্রন্ট), মার্টিন ম্যাকডোনা (দ্য বানশিজ অব ইনিশেরিন), পার্ক চ্যান-উক (ডিসিশন টু লিভ), টড ফিল্ড (টার) এবং ড্যানিয়েল কোয়ান ও ড্যানিয়েল শাইনার্ট (এভরিথিং এভরিহোয়্যার অল অ্যাট ওয়ান্স)।

তবে অসাধারণ নতুন গল্পকার, পরিচালক অথবা প্রযোজক (ব্রিটিশ) বিভাগে মনোনীত পাঁচটি ছবির সবাই নারী। তারা হলেন পরিচালক চার্লোট ওয়েলস (আফটারসান), প্রযোজক জর্জিয়া অকলি ও এলেন সিফ (ব্লু জিন), পরিচালক মারি লিদিয়েন (ইলেক্ট্রিক ম্যালাডি), গল্পকার ক্যাটি ব্র্যান্ড (গুডলাক টু ইউ, লিও গ্র্যান্ড), মায়া কেনওয়ার্দি (রেবেলিয়ন)।

উদীয়মান তারকা

ইই বাফটা রাইজিং স্টার অ্যাওয়ার্ড বিভাগে মনোনয়ন পেয়েছেন গায়িকা হুইটনি হাউস্টনের বায়োপিক ‘আই ওয়ানা ড্যান্স উইথ সামবডি’তে অভিনয় করা নাওমি আকি, ‘দ্য ওম্যান কিং’ তারকা শিলা আতিম, ‘পিকি ব্লাইন্ডার্স’ তারকা ড্যারিল ম্যাককর্ম্যাক, ‘সেক্স এডুকেশন’ তারকা অ্যাইমি লু উড ও এমা ম্যাকে।

নতুন সঞ্চালক

ব্রিটিশ একাডেমি অব ফিল্ম অ্যান্ড টেলিভিশন আর্টস (বাফটা) হলো ব্রিটেনের চলচ্চিত্র বিষয়ক সর্বোচ্চ পুরস্কার। আগামী ১৯ ফেব্রুয়ারি লন্ডনে সাউথব্যাংক সেন্টারের রয়েল ফেস্টিভ্যাল মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত হবে ৭৬তম বাফটা ফিল্ম অ্যাওয়ার্ডস। অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করবেন অভিনেতা রিচার্ড ই. গ্র্যান্ট। ২০১৯ সালে ‘ক্যান ইউ এভার ফরগিভ মি?’ ছবির জন্য বাফটায় মনোনয়ন পেয়েছেন তিনি।