• বৃহস্পতিবার ৩০ মে ২০২৪ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ১৫ ১৪৩১

  • || ২১ জ্বিলকদ ১৪৪৫

পিরোজপুর সংবাদ
ব্রেকিং:
বিশ্ব শান্তি প্রতিষ্ঠায় বাংলাদেশ রোল মডেল: প্রধানমন্ত্রী যুদ্ধ মানবজাতির জন্য কী কল্যাণ বয়ে আনছে- প্রশ্ন প্রধানমন্ত্রীর বিশ্বশান্তি নিশ্চিত করা এখন অতীতের চেয়ে কঠিন : শেখ হাসিনা বাংলাদেশ বিশ্ব শান্তি রক্ষায় এক অনন্য নাম : রাষ্ট্রপতি রাত ২টা পর্যন্ত নিজেই দুর্যোগ মনিটর করেছেন প্রধানমন্ত্রী রিমালে ক্ষতিগ্রস্ত বেড়িবাঁধ দ্রুত মেরামতের নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর বৃহস্পতিবার পটুয়াখালী যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী আবহাওয়া স্বাভাবিক হলে ক্ষতিগ্রস্ত এলাকায় যাবেন শেখ হাসিনা ‘স্মার্ট বাংলাদেশ’ গড়ার অগ্রযাত্রায় মার্কিন ব্যবসায়ীদের সহযোগিতা চেয়েছেন প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধুর জীবনীভিত্তিক ডকুমেন্টারি ‘কলকাতায় মুজিব’ অবলোকন

দুপুরে যেসব খাওয়া হতে পারে বিপজ্জনক

পিরোজপুর সংবাদ

প্রকাশিত: ১৯ নভেম্বর ২০২৩  

আমাদের মাঝে অনেকেই দুপুরের খাবার নিয়ে তেমন কোনো চিন্তা করেন না। হাতের কাছে যা পেয়ে যান তা খেয়েই পেট ভর্তি করেন। তবে এই অভ্যাস কিন্তু আপনার স্বাস্থ্যে খারাপ প্রভাব ফেলছে।
তাই যত দ্রুত সম্ভব দুপুরের খাবারের দিকে নজর দিতে হবে। কারণ এমন কয়েকটি খাবার আছে যা দুপুরে খাওয়া উচিত নয়। বিশেষজ্ঞদের মতে, দুপুরে এমন কয়েকটি খাবার অবশ্যই এড়িয়ে চলতে হবে, যা দেহের একাধিক ক্ষয়ক্ষতির কারণ হতে পারে।

বিরিয়ানি-চাউমিন, ফাস্টফুড: দুপুরে বিরিয়ানি, চাউমিনের মতো ফাস্টফুড খাওয়ার অভ্যাস থাকলে এখনই তা বাদ দিন। কারণ ফাস্টফুডে থাকে ক্ষতিকর তেল, মসলা, লবণের সম্ভার। তাই নিয়মিত এই খাবার খেলেই হার্ট, চোখ, ব্রেনসহ দেহের একাধিক অঙ্গের ওপর নেতিবাচক প্রভাব পড়ার ঝুঁকি বাড়ে।

কোল্ড ড্রিংকস বা মিষ্টি পানীয়: আপনার অতি প্রিয় কোল্ড ড্রিংকসে আছে মিষ্টির ভাণ্ডার, যা কি না দ্রুত সুগার বাড়াতে পারে। এমনকি ওজন বাড়াতেও এর জুড়ি মেলা ভার। এইসব পানীয়ে এমন কিছু ক্ষতিকর উপাদান মেশানো থাকে, যা পেটসহ দেহের একাধিক অঙ্গেও ক্ষতিকর প্রভাব ফেলে।

লাল মাংস: দুপুরের খাবারে অনেকেই গরু বা খাসির মাংস খান। তবে লাল মাংসে থাকে প্রচুর পরিমাণে স্যাচুরেটেড ফ্যাট যা কি না রক্তে কোলেস্টেরলের মাত্রা বাড়াতে পারে। আর সেই কারণে হৃদরোগের ফাঁদে পড়ার ঝুঁকি বাড়ে। একই সঙ্গে অত্যধিক লাল মাংস রক্তে ইউরিক অ্যাসিডের মাত্রাও বাড়াতে পারে।

চিপস: আজকাল অনেকেই দুপুরে হালকা খাবার খাবেন ভেবে চিপস খান। আর এতেই স্বাস্থ্যের দফারফা হয়ে যায়। কারণ চিপসের মতো ডিপ ফ্রায়েড ফুডে থাকে প্রচুর পরিমাণে ক্ষতিকর ফ্যাট যা কি না হার্টের বারোটা বাজাতে পারে। শুধু তাই নয়, যেকোনো চিপসেই মেশানো থাকে প্রচুর পরিমাণে লবণ ও মসলা। আর এই দুই উপাদান ব্লাড প্রেশারকে বাড়ায়। তাই বিপদ এড়াতে দুপুরে চিপস এড়িয়ে চলুন।

মিষ্টি: দুপুরে ভরপেট খাওয়ার পর মিষ্টিমুখ করতে যাবেন না ভুলেও। এই অভ্যাস ডায়াবেটিস থেকে শুরু করে কোলেস্টেরল, ব্লাড প্রেশারের মতো ঘাতক রোগের কারণ হতে পারে। চিকিৎসকের পরামর্শ নিন।