• বুধবার   ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২১ ||

  • আশ্বিন ১৩ ১৪২৮

  • || ২০ সফর ১৪৪৩

পিরোজপুর সংবাদ

যে তিনটি বিষয় মানুষকে টাকার চেয়েও বেশি আনন্দ দেয়

পিরোজপুর সংবাদ

প্রকাশিত: ১৫ সেপ্টেম্বর ২০২১  

‘টাকা দিয়ে আনন্দ কেনা যায় না।’ বহু সিনেমায় কিংবা উপন্যাসে এমন সংলাপ খুব সহজেই পাওয়া যাবে। কিন্তু আমাদের মধ্যেই এমন বহু মানুষ আছে, যারা এই মতের সঙ্গে এক মত নন। তাদের বিশ্বাস, টাকা থাকলেই আনন্দ আছে। টাকা না থাকলে কোনো আনন্দ নেই।

যদিও হালের এক সমীক্ষা বলছে, টাকা থাকা মানেই জীবনে আনন্দ থাকবে, তার কোনো মানে নেই। বরং সমীক্ষায় উঠে এসেছে অন্য তিনটি বিষয়। সেই জিনিসগুলো মানুষকে অর্থের চেয়েও বেশি আনন্দ দেয়। তেমনই বলছে ‘গ্রেটার গুড সায়েন্স সেন্টার’ নামক গবেষণাকারী সংস্থার সমীক্ষাটি। চলুন তবে জেনে নেয়া যাক কোন তিনটি বিষয় মানুষকে টাকার চেয়েও বেশি আনন্দ দেয়-

সুসম্পর্ক

এই তালিকার একেবারে প্রথমেই আছে সুসম্পর্কের বিষয়টি। বিশেষ করে বৈবাহিক বা প্রেমের জীবন যদি সুখের হয়, তাহলে জীবনে আনন্দের মাত্রা বেড়ে যায়। অর্থনৈতিক অভাবও সেখানে বিশেষ চাপ সৃষ্টি করে না। দক্ষিণ আমেরিকার বেশ কয়েকটি দেশে সমীক্ষা চালিয়ে এই দাবির সপক্ষে অনেকগুলো উদাহরণ উঠে এসেছে। দেখা গিয়েছে, শুধুমাত্র ভালোবাসার কারণেই মানুষ অর্থের অভাবের মধ্যেও বেশ আনন্দে আছেন।

শরীরচর্চা

নিয়মিত শরীরচর্চা করলে মন ভালো হয়। কারণ মন ভালো রাখার হরমোনগুলোর ক্ষরণ বাড়ে এর ফলে। কিন্তু সেই ভালো থাকার পরিমাণ কতটা? তাকে কি টাকার অংকে ব্যাখ্যা করা যাবে? সমীক্ষা এই প্রশ্নেরও উত্তর দিয়েছে। বলা হয়েছে, একজন গড়পড়তা আমেরিকার নাগরিকের বার্ষিক বেতন যদি বাংলাদেশি টাকায় ২৫ লাখ পর্যন্ত বাড়ে, তাহলে তিনি যতটা আনন্দ পান, রোজ শরীরচর্চা করলেও ঠিক ততটাই আনন্দ হয়।

যাতায়াতের সময়

তালিকার প্রথম দু’টি বিষয় পড়েই অবাক হতে পারেন কেউ। টাকার চেয়েও বেশি আনন্দ দেয় এগুলো! সেক্ষেত্রে তৃতীয় বিষয়টি আরো বিস্ময়কর মনে হতে পারে তাদের কাছে। সমীক্ষাটি বলছে, অফিস বা কর্মক্ষেত্র থেকে যাতায়াতের সময় কমলে, মানুষের মন ভালো হতে থাকে। আর সময় বাড়লে ঠিক উল্টোটা। এটিকেও সংখ্যায় ব্যাখ্যা করা হয়েছে সমীক্ষায়। কর্মক্ষেত্র থেকে যাতায়াতের সময় ২০ মিনিট বেড়ে গেলে মানুষের ঠিক ততটা বিরক্ত লাগে, যতটা বিরক্ত লাগে বার্ষিক বেতন ১৯ শতাংশ কমে গেলে।

অবশেষে বলা চলে, টাকা যে জীবনে আনন্দের একমাত্র উৎস নয়, তা পরিসংখ্যানের মাধ্যমে দেখিয়েছে সমীক্ষাটি। নিঃসন্দেহে অর্থনৈতিক উন্নতি হলে আনন্দ বাড়ে। কিন্তু সবচেয়ে বেশি আনন্দ যে যে জিনিসগুলো দিতে পারে, সেই তালিকার প্রথম তিনে নেই টাকা। সেটিই প্রমাণ করেছে এই সমীক্ষা।