• মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ ||

  • ফাল্গুন ১৩ ১৪৩০

  • || ১৫ শা'বান ১৪৪৫

পিরোজপুর সংবাদ
ব্রেকিং:
জনগণের আস্থা অর্জন করলে ভোট পাবেন: জনপ্রতিনিধিদের প্রধানমন্ত্রী জনপ্রতিনিধির মাধ্যমে উন্নয়ন কাজের ব্যবস্থাটা আমরা নিয়েছিলাম কেউ যেন ভুয়া ক্লিনিক-চিকিৎসকের দ্বারা প্রতারিত না হন: রাষ্ট্রপতি স্থানীয় সরকার বিভাগে বাজেট বরাদ্দ ৬ গুণ বেড়েছে: প্রধানমন্ত্রী স্থানীয় সরকারকে মাটি-মানুষের সঙ্গে নিবিড় সম্পর্ক গড়তে হবে শবে বরাতের মাহাত্ম্যে উদ্বুদ্ধ হয়ে দেশের কাজে আত্মনিয়োগের আহ্বান সমাজের অসহায়, দরিদ্র মানুষের সহায়তায় এগিয়ে আসতে হবে দেশের মানুষের জন্য ন্যায়বিচার নিশ্চিত করতে হবে বিচারকদের ক্ষমতার অপব্যবহার রোধকল্পে খেয়াল রাখার আহ্বান মিউনিখ সফরে বাংলাদেশের অঙ্গীকার বলিষ্ঠরূপে প্রতিফলিত হয়েছে

১২ বছরের ছাত্রকে ধর্ষণের পর হয়রানি, শিক্ষিকা গ্রেফতার

পিরোজপুর সংবাদ

প্রকাশিত: ৪ অক্টোবর ২০২৩  

যুক্তরাষ্ট্রের টেনেসি অঙ্গরাজ্যে ১২ বছর বয়সী এক ছাত্রকে ধর্ষণে অভিযুক্ত একজন শিক্ষিকাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। ভুক্তভোগী ছাত্রকে লাঞ্ছিত ও হয়রানি করার দায়ে তাকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।
অঙ্গরাজ্যটির কোভিংটন পুলিশ বিভাগের এক বিবৃতিতে ওই শিক্ষিকাকে গ্রেফতারের তথ্য জানানো হয়েছে।

সংবাদমাধ্যম নিউইয়র্ক পোস্টের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, পুলিশ অ্যালিসা ম্যাককমন (৩৮) নামের ওই শিক্ষিকাকে তার কোভিংটনের বাড়ি থেকে গ্রেফতার করেছে। তার বিরুদ্ধে ভুক্তভোগী ছাত্রকে লাঞ্ছিত ও যৌন হয়রানি করার নতুন অপরাধমূলক অভিযোগ আনা হয়েছে।

এর আগে গত ৮ সেপ্টেম্বর চার্জার অ্যাকাডেমির সাবেক ওই শিক্ষিকাকে এক শিশু শিক্ষার্থীকে ধর্ষণের অভিযোগে গ্রেফতার করা হয়েছিল। তবে দুই সন্তানের জননী এই শিক্ষিকা তার বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ স্বীকার করেননি।

টেনেসির কোভিংটন পুলিশ বিভাগ (সিভিডি) সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে দেওয়া এক বার্তায় বলেছে, সাবেক শিক্ষিকা অ্যালিসা ম্যাককমন একটি নতুন ফোন নম্বর ব্যবহার করছেন এবং একজন ভুক্তভোগীর সাথে আবারও যোগাযোগ শুরু করেছেন বলে সিপিডির অপরাধ তদন্ত বিভাগ (সিআইডি) তথ্য পেয়েছে।

বিবৃতিতে পুলিশ বলেছে, কিশোরদের কাছে পরিচিত একটি কোড ওয়ার্ড ব্যবহার করে ম্যাককমন এক ভুক্তভোগীকে ক্ষুদেবার্তা পাঠিয়েছিলেন। প্রায়ই নগ্ন ছবি পাঠানোর আগে একই ধরনের কোড পূর্বেও ব্যবহার করেছিলেন তিনি। আর ওই কোডের মাধ্যমে কিশোর একা আছেন কি না তা তিনি নিশ্চিত হতেন ম্যাককমন। পূর্বে একই নম্বরের মাধ্যমে যোগাযোগ করে ভুক্তভোগী কিশোরের সাথে শারীরিক সম্পর্কে লিপ্ত হওয়ার কথা স্বীকার করেন তিনি।

কোভিংটনের পুলিশ প্রধান ডোনা টার্নার বলেছেন, ‘ম্যাককমনের কর্মকাণ্ড কেবল আতঙ্কিত হওয়ার মতোই নয়, বরং সিপিডি তার স্বাক্ষর করা বন্ডের শর্তাবলির পরিষ্কার লঙ্ঘনের বিষয়েও উদ্বিগ্ন।’

অভিযুক্ত শিক্ষিকাকে টেনেসির টিপটন কাউন্টি কারাগারে পাঠানো হয়েছে। ছাত্রের সাথে যৌনতায় লিপ্ত হওয়ার দায়ে অভিযুক্ত এই শিক্ষিকাকে টিপটন কাউন্টির জেনারেল সেশন কোর্টে হাজির করার কথা রয়েছে। তার আগে পর্যন্ত তাকে কারাগারে বন্দি রাখা হয়েছে।