• শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ ||

  • ফাল্গুন ১০ ১৪৩০

  • || ১২ শা'বান ১৪৪৫

পিরোজপুর সংবাদ
ব্রেকিং:
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ইউরোপীয় কমিশনের প্রেসিডেন্টের অভিনন্দন প্রতিবেশীদের সঙ্গে সুসম্পর্ক রেখেই সামুদ্রিক সম্পদ আহরণের আহ্বান সমুদ্রসীমার সম্পদ আহরণ করে কাজে লাগানোর তাগিদ প্রধানমন্ত্রীর ২১ বছর সমুদ্রসীমার অধিকার নিয়ে কেউ কথা বলেনি: শেখ হাসিনা হঠাৎ টাকার মালিক হওয়ারা মনে করে ইংরেজিতে কথা বললেই স্মার্টনেস ভাষা আন্দোলন দমাতে বঙ্গবন্ধুকে কারান্তরীণ রাখা হয় : সজীব ওয়াজেদ ভাষা আন্দোলনের পথ ধরেই বাংলাদেশের মানুষ স্বাধিকার পেয়েছে অশিক্ষার অন্ধকারে কেউ থাকবে না: প্রধানমন্ত্রী একুশ মাথা নত না করতে শেখায়: প্রধানমন্ত্রী একুশে পদক তুলে দিলেন প্রধানমন্ত্রী

ঈদুল আজহায় বান্দরবান ভ্রমণে ৩০ শতাংশ পর্যন্ত ছাড়

পিরোজপুর সংবাদ

প্রকাশিত: ১৮ জুন ২০২৩  

এবার পবিত্র ঈদুল আজহার ছুটিতে বান্দরবান ভ্রমণকারীদের জন্য থাকছে ১০ থেকে ৩০ শতাংশ পর্যন্ত ছাড়। জেলার তিন উপজেলায় ভ্রমণে নিষেধাজ্ঞা থাকলেও বান্দরবান সদর, আলীকদম, লামা ও নাইক্ষ্যংছড়ি ভ্রমণপ্রত্যাশীদের জন্য উন্মুক্ত রয়েছে।

পাহাড় কন্যাখ্যাত অপরূপা বান্দরবান প্রকৃতিপ্রেমী ও ভ্রমণপ্রত্যাশীদের জন্য যেন এক প্রাকৃতিক ভূস্বর্গ। ফলে বছরজুড়ে কমবেশি ভ্রমণপিপাসুদের পদচারণায় মুখর থাকে জেলার বিভিন্ন দর্শনীয় স্থান। বিশেষ করে বর্ষা মৌসুমে পাহাড় যেন ফিরে পায় পূর্ণ যৌবন। মেঘ, বৃষ্টি, কুয়াশাচ্ছন্ন সবুজের মনোমুগ্ধকর এই প্রাকৃতিক রূপ মুহূর্তেই বিমোহিত করে পর্যটকদের।

আসন্ন পবিত্র ঈদুল আজহার ছুটি উপলক্ষে জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে জনপ্রিয় পর্যটন স্পষ্ট নীলাচল ও মেঘলা পর্যটনকেন্দ্রে প্রবেশ ফিতে ২০ শতাংশ ছাড় দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছে জেলা প্রশাসন। যা ঈদের ছুটি থেকে শুরু হয়ে আগামী সেপ্টেম্বর পর্যন্ত থাকবে। এছাড়া আবাসিক হোটেলগুলোতেও ক্ষেত্র বিশেষে ২০ থেকে ৩০ শতাংশ এবং পর্যটকবাহী গাড়িতে (চাঁদের গাড়ি) ১০ শতাংশ ছাড় দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কর্তৃপক্ষ।

বান্দরবান জিপ-মাইক্রোবাস মালিক সমিতির সভাপতি নাছিরুল আলম বলেন, আগামী ঈদুল আজহা উপলক্ষে ১ জুলাই থেকে সেপ্টেম্বর পর্যন্ত বান্দরবান ভ্রমণপ্রত্যাশীদের জন্য প্রত্যেক গাড়িতে ১০ শতাংশ ছাড় দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

বান্দরবান হোটেল মালিক সমিতির সভাপতি অমল দাশ বলেন, বান্দরবান ভ্রমণকারীদের সুবিধার্থে আগামী জুলাই থেকে সেপ্টেম্বর পর্যন্ত ক্ষেত্র বিশেষে সব আবাসিক হোটেলে ২০ থেকে ৩০ শতাংশ ছাড় দেওয়ার জন্য হোটেল ব্যবসায়ীদের মধ্যে আলাপ চলছে। সভায় সবার আলোচনা সাপেক্ষে এই ছাড় দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

বান্দরবান জেলা প্রশাসক ইয়াছমিন পারভীন তিবরীজি বলেন, পবিত্র ঈদুল আজহা উপলক্ষে নীলাচল ও মেঘলা পর্যটন কেন্দ্রে ২০ শতাংশ ছাড় দেওয়া হয়েছে, যা সেপ্টেম্বর পর্যন্ত চলবে।